তিনি দুর্নীতিপরায়ণ
রিপোর্টে এর কোনও
প্রমান নেই বললেন
সিভিসি রিপোর্টের দায়িত্বে
থাকা বিচারপতি পট্টনায়ক

তিনি দুর্নীতিপরায়ণ <br>রিপোর্টে এর কোনও <br>প্রমান নেই বললেন <br>সিভিসি রিপোর্টের দায়িত্বে <br>থাকা বিচারপতি পট্টনায়ক
+

গণশক্তির প্রতিবেদন: প্রাক্তণ সিবিআই কর্তা অলোক বর্মার বিরুদ্ধে আনা দুর্নীতির অভিযোগের কোনও প্রমান নেই জানালেন সুপ্রিম কোর্টের প্রাক্তন বিচারপতি একে পট্টনায়ক। সেন্টাল ভিজিলেন্স কমিশনের তদন্ত রিপোর্টের দায়িত্বে থাকা প্রাক্তন এই বিচারপতি একথা জানান। বিচারপতি পট্টনায়কের এই মন্তব্য রীতিমতো অস্বস্থিতে ফেলে দিল মোদী সরকারকে। বিচারপতি পট্টনায়ক জানান বর্মার বিরুদ্ধে যে দুর্নীতির অভিযোগ আনা হয়েছে তার কোনও প্রমান নেই ভিজিলেন্স রিপোর্টে। তিনি আরও জানান যে সিবিআইয়ের বিশেষ অধিকর্তা রাকেশ আস্থানার অভিযোগের ভিত্তিতে তৈরি হয় ওই রিপোর্ট এবং তাঁর কাছে সিভিসি-র পাঠানো রিপোর্টে আস্থানার স্বাক্ষর ছিল। বিচারপতি পট্টনায়ক জানা যে ভার্মার বিরুদ্ধে যে ১০ দফা অভিযোগ ছিল, তার মধ্যে ৪টি ভিত্তিহীন। ৪টি অভিযোগে তাঁর বিরুদ্ধে তদন্তের সুপারিশ করা হয়েছে।

 

প্রসঙ্গত, গত ৮ জানুয়ারি সিবিআই অধিকর্তার পদে অলোক ভার্মাকে পুনর্বহাল করে সুপ্রিম কোর্টের প্রধান বিচারপতির বেঞ্চ। তাঁর পরবর্তী সিদ্ধান্ত নেওয়ার জন্য প্রধানমন্ত্রীর নেতৃত্বে তিন সদস্যের কমিটির উপর দায়িত্ব দেওয়া হয়। ৪৮ ঘণ্টার মধ্যে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী, সুপ্রিম কোর্টের প্রধান বিচারপতির প্রতিনিধি বিচারপতি অর্জন কুমার সিক্রি এবং বিরোধী দলনেতা মল্লিকার্জুন খাড়গের উচ্চপর্যায়ের বাছাই কমিটি ভার্মার অপসারণের সিদ্ধান্ত নেয়। ওই পদে অন্তর্বর্তীকালীন সিবিআই অধিকর্তা হিসাবে বসানো হয় নাগেশ্বর রাওকে। সরকারের এই সিদ্ধান্তের পর কড়া অভিযোগ করে চাকরি ছাড়েন অলোক ভর্মা। তবে সরে গিয়েও মোদী সরকারের গলার কাঁটা হয়ে রইলেন প্রাক্তন এই সিবিআই কর্তা।

Current Affairs

Featured Posts

Advertisement