উত্তর প্রদেশকে দুর্বিষহ
অবস্থায় ফেলার পূর্বাভাষ

পলিট ব্যুরো

নিজস্ব প্রতিনিধি : নয়াদিল্লি, ১৯শে মার্চ — যোগী আদিত্যনাথের উত্তর প্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী হিসাবে নিয়োগ রাজ্যেকে দুর্বিষহ অবস্থার দিকে ঠেলে দেওয়ার পূর্বাভাষ বলেই মনে করছে সি পি আই (এম) পলিট ব্যুরো। ফলে ওই রাজ্যের সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতি সুনিশ্চিত করার লক্ষ্যে সমস্ত গণতান্ত্রিক ও ধর্মনিরপেক্ষ শক্তিকে ঐক্যবদ্ধ হয়ে লড়াই করার আহ্বান জানিয়েছে সি পি আই (এম)।
রবিবার এক বিবৃতিতে সি পি আই (এম) পলিট ব্যুরো বলেছে, উত্তর প্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী হিসাবে বি জে পি-র তরফে যোগী আদিত্যনাথের নিয়োগ এক বড় ধরনের ধাক্কা। আর এস এস-র পছন্দমাফিক আদিত্যনাথকে নিয়োগ করছে সঙ্ঘ পরিবারের রাজনৈতিক শক্তি বি জে পি। এই নিয়োগ রাজ্যকে দুর্বিষহ পরিস্থিতির দিকে ঠেলে দেওয়ারই পূর্বাভাষ।
উগ্র হিন্দুত্ববাদী হিসাবেই পরিচিত আদিত্যনাথ। সাম্প্রদায়িক হানাহানিতে মদত জোগানোর বহু অভিযোগ রয়েছে ওঁর বিরুদ্ধে। বহু ফৌজদারি মামলা ঝুলে রয়েছে আদিত্যনাথের বিরুদ্ধে। জাতপাতের রাজনীতিরও গোঁড়া সমর্থক উনি।
প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর ‘উন্নয়নই তাঁর একমাত্র কর্মসূচি’ দাবি যে ভাঁওতা ছাড়া কিছু নয়, তা আরও স্পষ্ট হয়ে গিয়েছে আদিত্যনাথকে মুখ্যমন্ত্রী হিসাবে বেছে নেওয়ার সিদ্ধান্তেই। তাঁর ‘সবকা সাথ, সবকা বিকাশ’ স্লোগান স্রেফ ঠাট্টা মনে হচ্ছে।
 এই পরিস্থিতিতে সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতি রক্ষার পাশাপাশি সাংবিধানিক স্বীকৃতি অনুযায়ী সমাজের সমস্ত সম্প্রদায়ের অধিকার সুরক্ষিত রাখার বিষয়টি সুনিশ্চিত করতে উত্তর প্রদেশের সব ধর্মনিরপেক্ষ ও গণতান্ত্রিক শক্তিকে ঐক্যবদ্ধভাবে লড়াই চালানোর আহ্বান জানিয়েছে সি পি আই (এম) পলিট ব্যুরো।