১৯লক্ষ ৫৪ হাজার টাকা‌র
দুর্নীতি স্কুলে, ক্ষোভ ছাত্রদের

নিজস্ব সংবাদদাতা

মেদিনীপুর, ১২ই সেপ্টেম্বর — ১৯ লক্ষ ৫৪ হাজার টাকা আত্মসাৎ হয়ে‌ছে কেশপুর ব্লকের গোটগে‌ড়্যা হাইস্কুলে। এমনই অভিযোগ স্থানীয় মানুষের। অভিযোগ উঠেছে স্কুলের প্রধান শিক্ষক আশিস মণ্ডল এবং পরিচালন কমিটির সভাপতি তৃণমূল নেতা সঞ্জয় করণের বিরুদ্ধে। এর প্রতিবাদে আন্দোলনে নেমেছে স্কু‍‌লের ছাত্রছাত্রীরা। এই দুর্নীতির তদন্ত ও দোষীদের শাস্তির দাবিতে স্কুল পড়ুয়ারা আন্দোলন চালিয়ে যাচ্ছে ২০১৬-র ২১শে জুলাই থেকে। সেদিন মেদিনীপুর শহরে ডি আই দপ্তরে গিয়ে তদন্তের দাবি জানিয়েছিল ছাত্রছাত্রীরা। তখন দায়িত্বপ্রাপ্ত স্কুল পরিদর্শক স্কুলে গিয়ে ব্যাঙ্কের পাশবই খাতাপত্র উদ্ধার করে তদন্ত করেন। দেখা যায় এই টাকাই লোপাট হয়েছে। শিক্ষা দপ্তরসহ বিভিন্ন দপ্তরে চিঠি যায় এই চুরির বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিতে। ১৩ মাস পেরিয়ে গেছে, ব্যবস্থা নেওয়া হয়নি। এই দুর্নীতির কথা ওই দুজন স্বীকারও করেন। ইতিমধ্যে প্রধান শিক্ষক পাঁচ লক্ষ টাকা ফেরতও দেন। কিন্তু বাকি টাকা ফেরতের উদ্যোগ নেয়নি উচ্চতর কর্তৃপক্ষ। আত্মসাৎকারীরা এখনও পদে বহাল।

দুর্নী‍‌তি এবং প্রশাসনের দায়িত্বহীনতার প্রতিবাদে স্কু‍‌লের ছাত্রছাত্রীরা মঙ্গলবার মেদিনীপুর শহরে জেলাশাসকের দপ্তরের সামনে বিক্ষোভ দেখায়। ছাত্রছাত্রীরা জানায়, তাদের থেকে খেলাধুলা, ম্যাগাজিন, সাংস্কৃতিক প্রতিযোগিতা, সরস্বতী পুজোসহ বিভিন্ন খাতে টাকা নেওয়া হলেও সেই সব কর্মসূচি হয় না। ছাত্রছাত্রীরাও প্রধান শিক্ষকের আসল চরিত্র বুঝে ফেলেছে। মিড ডে মিলের খাবার পাশের যে কোনও স্কুলের চেয়ে খুব নিম্নমানের। গত বছর প্রতিবাদী ছাত্রদের হুমকি ও মারধর করে তৃণমূলী নেতা কর্মীরা। অভিযোগ, এতে উসকানি দেন প্রধান শিক্ষক।

মঙ্গলবার বিক্ষোভের সময় জেলাশাসকের দপ্তর থেকে স্কুল পড়ুয়া কয়েকজনকে ভিতরে ডেকে নিয়ে যাওয়া হয়। ছাত্রছাত্রীরা লিখিত বক্তব্য পেশ করে। স্কুলের উন্নয়নের জন্য প্রশাসনের হস্তক্ষেপের দাবি জানায়।