বৃষ্টির জলে ভেজে অঙ্গনওয়াড়ি
কেন্দ্র আবেদন জানিয়েও
সংস্কার হয়নি

নিজস্ব সংবাদদাতা

পুরুলিয়া, ১৪ই ফেব্রুয়ারি— দুবছর নয়মাস আগে অঙ্গনওয়াড়ি কেন্দ্র সংস্কারের জন্য আবেদন জানানো হয়েছিল। সেই আবেদন এক দপ্তর থেকে অন্য দপ্তরে গেছে। কিন্তু সংস্কারের কাজ হয়নি। তাই ভগ্ন দশায় থাকা হুড়া ব্লকের নোয়াডি সর্দার পাড়ার ১১২ নম্বর অঙ্গনওয়াড়ি কেন্দ্রটির কোনও পরিবর্তন হয়নি। অঙ্গনওয়াড়ি কেন্দ্রটির কর্মী ও সহায়িকা বহুবার দরবার করেছেন সংস্কারের জন্ম। লাভ হয়নি কোনও। ফলে চরম সমস্যা নিয়েই কেন্দ্রটি চলছে কোনও রকমে। বর্ষাকালে অনেক সময় বন্ধই থাকে কেন্দ্রটি।

পুরুলিয়ার হুড়া ব্লকের মাঙ্গুরিয়া-লালপুর গ্রাম পঞ্চায়েত এলাকার নোয়াডি সর্দার পাড়ার ১১২ নম্বর অঙ্গনওয়াড়ি কেন্দ্র। শিশু, প্রসূতি ও গর্ভবতী মাসহ মোট ৮২জন উপভোক্তা রয়েছেন। দীর্ঘদিন ধরেই নোয়াডি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের পাশে একটি অ্যাসবেস্টসের ছাউনি দেওয়া ঘরে অঙ্গনওয়াড়ি কেন্দ্রটি চলছে।

এদিকে নিজের ঘরে সামগ্রী রাখতে নারাজ সংশ্লিষ্ট কর্মী। যে ঘরটিতে বর্তমানে সেন্টার তার অ্যাসবেস্টসের চাল ফুটো। বৃষ্টির জল ঢুকে যায় কেন্দ্রে। বর্ষার সময়ে কোনও কোনও দিন সেন্টারটি খোলা যায় না। বঞ্চিত উপভোক্তারা। ঘরটির সংস্কারের জন্য ২০১৫ সালের মে মাসে বি ডি ও-র কাছে আবেদন জানিয়েছিলেন অঙ্গনওয়াড়ি কর্তৃপক্ষ। বি ডি ও সেই আবেদন পাঠিয়েছিলেন পঞ্চায়েতে। প্রশাসন খাস জমির সন্ধান দিতে বলেছিল— সে সন্ধান দিয়েও কাজের কাজ কিছু হয়নি।

Featured Posts

Advertisement