তামিলনাডুর পাহাড়ি জঙ্গলে
দাবানলে পড়ে ৯ট্রেকারের মৃত্যু

সংবাদসংস্থা   ১৩ই মার্চ , ২০১৮

থেনি, ১২ই মার্চ— তামিলনাডুর দক্ষিণাঞ্চলে ভয়াবহ দাবানলে আটকে পড়া ৩৯জন ট্রেকারের মধ্যে ৯জন দগ্ধ হয়ে মারা গিয়েছেন। বাকি তিরিশজন, যাদের অধিকাংশই শিক্ষার্থী, তাদের উদ্ধার করে ভর্তি করা হয়েছে হাসপাতালে। আরও শিক্ষার্থী ট্রেকারের খোঁজে তল্লাশি চালাচ্ছে ভারতীয় বায়ুসেনার হেলিকপ্টার।

নারী দিবস উপলক্ষে চেন্নাই ট্রেকিং ক্লাবের আয়োজনে ট্রেকিং করতে গিয়েছিলেন ২৫ জন মহিলা শিক্ষার্থী ও তিনটি শিশু। তাদের ফেরার সময় থেনি জেলার কুরানগিনি পাহাড়ে দাবানল শুরু হয়। রবিবার পাহাড়ের চুড়োয় আগুন তাদের ঘিরে ফেলে। এই পরিস্থিতিতে অনেকে নিচে থাকা বোল্ডারে ঝাঁপিয়ে পড়ে বাঁচার চেষ্টা করেন। রবিবার সূর্যাস্তের আগে ওই পাহাড়ি এলাকা থেকে তোলা একটি ভিডিওতে দেখা গিয়েছে, আগুনে দগ্ধ কিছু মহিলা পড়ে রয়েছেন, পোড়া ক্ষতের কারণে নড়াচড়া করতে পারছেন না।

তামিলনাডুর মুখ্যমন্ত্রী ই পালানিসামির অনুরোধে প্রতিরক্ষামন্ত্রী নির্মলা সীতারমণ উদ্ধার অভিযানে সহায়তার জন্য নির্দেশ দেন বিমান বাহিনীকে। থেনি— কেরালার থেক্কাডি এলাকার সীমান্তলাগোয়া, এই এলাকাটিতেই রয়েছে বিখ্যাত পেরিয়ার ন্যাশনাল পার্ক। তামিলনাডুর পাশাপাশি কেরালা পুলিশের একটি দলকেও উদ্ধার অভিযানে সহায়তা করতে থেনিতে পাঠানো হয়।

ট্রেকারদের মধ্যে ২৭জন চেন্নাই থেকে এবং ১২জন এরোদি ও তিরুপুর থেকে গিয়েছিলেন। সবাই ছোট ছোট দলে ভাগ হয়ে কুরানগানি পাহাড় থেকে ফিরছিলেন। ওই অঞ্চলের পদস্থ পুলিশকর্তা বাস্কারন একটি এন ডি টি ভি-কে বলেছেন,‘৩৯জন ট্রেকারের মধ্যে ৩০জন আগুনে ঘেরা একটি টিলায় আটকে পড়েন। তাদের সন্ধান পেয়ে টিলা থেকে নামিয়ে এনে চিকিৎসা শুরু করা হয়।’

ঘটনার পর রাজ্যের বনাঞ্চলে সাময়িক সময়ের জন্য নিষেধাজ্ঞা জারি করেছে কেরালা সরকার। রাজ্যের বিপর্যয় মোকাবিলা কর্তৃপক্ষ এক বিবৃতিতে এই সিদ্ধান্ত জানিয়েছে।

Featured Posts

Advertisement