পশ্চিমাঞ্চল উন্নয়ন পর্ষদ
নিয়ম ভেঙে শাসকদলের
ঘনিষ্ঠকে ২কোটি টাকার কাজ

নিজস্ব সংবাদদাতা   ১৪ই জুন , ২০১৮

বাঁকুড়া, ১৩ই জুন— সরকারি নির্দেশিকা না মানা সত্ত্বেও শাসকদলের ঘনিষ্ঠ এক ব্যক্তিকে পশ্চিমাঞ্চল উন্নয়ন পর্ষদ থেকে প্রায় ২কোটি টাকার কাজ দেওয়া হয়েছে। এই ঘটনায় চাঞ্চল্য দেখা দিয়েছে পশ্চিমাঞ্চল উন্নয়ন পর্যদের বাঁকুড়া কার্যালয়ে। বিষয়টি বাঁকুড়ার জেলাশাসক ও রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রীর কাছে জানানো হচ্ছে বলে বুধবার একাধিক ঠিকাদার জানান। তাঁদের অভিযোগ এই বেআইনি কাজে পশ্চিমাঞ্চল উন্নয়ন পর্ষদের এক শ্রেণির আধিকারিক যুক্ত।

এন আই টি ৮৪/পি ইউ পি/ই সি/ বি এন কে অফ ২০১৭-১৮ এই নম্বরে বাঁকুড়ার রাইপুরের ফুলবেড়িয়া থেকে বাগজাদা ভায়া বন বাসুদেবপুর এই রাস্তার কাজটি বের হয়। নিয়ম অনুযায়ী কোনও কাজ পেতে গেলে ই টেন্ডার করার সময় সেই ব্যক্তির কাজের অভিজ্ঞতার কাগজপত্র জমা করতে হয়। তার মধ্যে লাগে এই ধরনের কাজ আগে কোথাও করার ওয়ার্কঅর্ডার, সেই কাজের এস্টিমেড কপি, সেই কাজ শেষ করার সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের কাছ থেকে পাওয়া শংসাপত্র। এক্ষেত্রে ওই ঠিকাদার তার আগের এই ধরনের কাজের কোনও ওয়ার্ক অর্ডার দেননি। যা দেওয়া একেবারে বাধ্যতামুলক। আর কাজের ক্রেডেন্সিয়ালের এও যা কাজ পাওয়ার পর সংশ্লিষ্ট দপ্তর কাজ দেওয়ার কথা স্বীকার করে চিঠি দেয়, সেই চিঠিতে কাজের জায়গার মধ্যে কোনও মিল নেই। সেখানে ওই ব্যক্তির আগের কাজের জায়গার ক্ষেত্রে দুটি জায়গা উল্লেখ করা হয়েছে। এটাই বেআইনি। গোটা ব্যাপারটাই সন্দেহজনক।

পশ্চিমাঞ্চল উন্নয়ন পর্ষদ এর আগেও একাধিক এধরনের কাজ করছে বলে অভিযোগ। এক্ষেত্রেও এধরনের আগের কাজের ওয়ার্কঅর্ডার না থাকা সত্ত্বেও কিভাবে এই মোটা টাকার কাজ একজনকে পাইয়ে দেওয়া হলো তা নিয়ে সরগম হচ্ছে অফিস চত্বর। অভিযোগ, এক্ষেত্রে শাসকদলের দক্ষিণ বাঁকুড়ার এক নেতার চাপ তার সঙ্গে সংশ্লিষ্ট দপ্তরের কিছু আধিকারিকের সঙ্গে কয়েক লক্ষ টাকা লেনদেনের মধ্যে দিয়েই এই কাজ দেওয়া হয়েছে।

Featured Posts

Advertisement