সেতু সংস্কারের নামে ভুয়ো বিল
দেখিয়ে টাকা তুলল তৃণমূলী পঞ্চায়েত

নিজস্ব সংবাদদাতা   ২০শে আগস্ট , ২০১৮

মেদিনীপুর, ১৯শে আগস্ট— বর্ষায় রাস্তার ধারে গজিয়ে ওঠা ঝোপঝাড় পরিষ্কার করছিলেন এলাকার যুবকেরা। ঝোপের মধ্যে উদ্ধার হলো গ্রাম পঞ্চায়েতের ভুয়ো‍‌ হিসাবের সাইনবোর্ড। সাইনবোর্ডে কাঠের ব্রিজ সংস্কার লেখা। তাতে খরচ দেখানো হয়েছে ১ লক্ষ ৯ হাজার ১৮৬ টাকা। এমন ব্যয়ের আগে আনুমানিক শব্দটি লেখা রয়েছে। কাজ শুরু ৪ঠা ফেব্রুয়ারি ২০১৮। কিন্তু কাজ শেষ উল্লেখ করা হয়েছে হালকা কালির অন্য হাতের লেখা অক্ষরে ৯ই ফেব্রুয়ারি, ২০১৮। ঘটনাটি ঘটেছে দাশপুর থানার জ্যোতঘনশ্যাম গ্রাম পঞ্চায়েতের বাগদী ভেড়ি মৌজায়।

ঐ এলাকায় কৃশানু সামন্ত, প্রণব মাইতি, প্রসেনজিৎ করণসহ আরও কয়েকজন এমন সাইনবোর্ড দেখে গ্রামের মানুষদের জানান। তারপরেই জানা গেল, গত পাঁচ-সাত বছর ঐ স্থানের কাঠের পুলটি কবে সংস্কার হয়েছে কেউ মনে করতে পারছে না। জ্যোতঘনশ্যাম গ্রামে দুটি বুথ। দুটি বুথের মানুষই এই কাঠের ব্রিজটির উপর দিয়ে প্রতিদিন যাতায়াত করেন। এই গ্রামেই বসবাস করেন তৃণমূল ব্লক সভাপতি আশিস হুঁতাইৎ। তাঁর কাছেও খবর যায়। দলের সমর্থকরাও এমন দুর্নীতি দেখে ধিক্কার জানিয়েছেন। গ্রামের প্রদীপ সামন্ত বলেন, ব্রিজটির দুটি পাটাতন নষ্ট হয়ে গিয়েছিল। সাত ফুট লম্বা ও এক ফুট চওড়া দুটি পাটাতন। পঞ্চায়ে‌ত নির্বাচনের আগে পঞ্চায়েত থেকে এমনই দুটি পাটাতন দেওয়া হয়েছিল। এক লক্ষ নয় হাজার একশো ছিয়াশি টাকা দেখানো হয়েছে তার খরচ।

কাঠের ব্রিজটিতে যে দুটি পাটাতন বদলানো হয়েছে এখনও সেই চিহ্ন রয়েছে। ইতিমধ্যে ঐ মৌজায় একই রাস্তাকে দেখিয়ে ২০১৬-১৭ বর্ষে দুবার ঢালাই বাবদ খরচ দেখানো হয়েছে গড়ে ৫ লক্ষ টাকা। দুরকমভাবে দুটি সাইনবোর্ডে দেখানো হয়েছে। আবার ঢালাই রাস্তা তৈরির পরের বছর ঐ একই রাস্তাকে দেখিয়ে ৪ লক্ষ ৪৯ হাজার ৫৯৯ টাকার মাটির রাস্তা তৈরি বাবদ খরচ দেখানো হয়েছে। এমন রাস্তা ঐ গ্রামে যে হয়নি তা নিয়ে গণশক্তিতে খবর হয়। তারপর আবার এমন কাঠের ব্রিজ সংস্কার নামে ভুয়ো খরচের সাইনবোর্ড ঝোপ থেকে উদ্ধার হলো।

Current Affairs

Featured Posts

Advertisement