ভগবানগোলার সমাবেশে নৃপেন চৌধুরি
অধিকার যাত্রার অভিজ্ঞতা পুষ্ট
করবে আগামীর আন্দোলনকে

নিজস্ব সংবাদদাতা   ২৫শে সেপ্টেম্বর , ২০১৮

বহরমপুর, ২৪শে সেপ্টেম্বর— মানুষকে অন্যায়ের বিরুদ্ধে সংগঠিত করতে আগামীদিনে নতুন পথচলার শুরু অধিকার যাত্রা থেকেই। ভগবানগোলায় ৮টি গ্রাম পঞ্চায়েত এলাকায় প্রায় ৯০ কিলোমিটার অধিকার যাত্রার শেষে বি পি এম ও-র কেন্দ্রীয় সমাবেশে একথা বললেন নেতৃবৃন্দ। ভগবানগোলায় শনিবার শুরু হওয়া অধিকার যাত্রা শেষ হয় রবিবার।

সোমবার ভগবানগোলা বর্ষাতিগোলায় সমাবেশে বক্তব্য রাখেন কৃষকসভার রাজ্য সভাপতি নৃপেন চৌধুরি, বিধায়ক মহসিন আলি, সি আই টি ইউ জেলা সম্পাদক মহম্মদ নিজামুদ্দিন, প্রাক্তন যুবনেতা কামাল হোসেন, যুবনেতা আনোয়ার সাদাত, ছাত্রনেতা জামাল হোসেন, শ্রমিকনেতা হাবিবুর রহমান, কৃষকনেতা আলাউদ্দিন শেখ প্রমুখ। ফসলের লাভজনক দাম, কর্মসংস্থানের দাবিতে সরব হন নেতৃবৃন্দ।

সমাবেশে নৃপেন চৌধুরি বলেন, দানবীয় চেহারা নিয়ে মানুষের বিরুদ্ধে যুদ্ধ ঘোষণা করেছেন কেন্দ্র আর রাজ্যের সরকার। জাতধর্মের নামে উসকানি তৈরি করে হত্যা করা হচ্ছে গরিব মানুষদের। অন্যদিকে, রাজ্যে পুলিশের গুলি থেকে রেহাই মিলছে না শিক্ষকের দাবিতে আন্দোলনরত ছাত্রছাত্রীদেরও। এদের মোকাবিলা করেই অধিকার অর্জন করবেন মানুষ। এই সংগ্রামের জন্য গরিব মানুষকে ঐক্যবদ্ধ হতে হবে। তিনি বলেন, রাজ্যে পঞ্চায়েত নির্বাচনে লাগামছাড়া তৃণমূলী সন্ত্রাসেও শেষ করা যায়নি লালঝান্ডাকে। অধিকার যাত্রায় শামিল হয়ে লড়াইয়ের পাশেই দাঁড়িয়েছেন মানুষ। অধিকার যাত্রার নতুন অভিজ্ঞতায় পুষ্ট হবে আন্দোলন।

এবছর অনেক কম দামে পাট বিক্রি করে দিতে বাধ্য হচ্ছেন ভগবানগোলার চাষিরা। নাহলে চলছে না সংসার। পাটের সঠিক দাম না পেলে পথে বসবেন বহু কৃষক। এদিনের সভা থেকে পাটের লাভজনক দামের সোচ্চার দাবি জানান নেতৃবৃন্দ।

নেতৃবৃন্দ বলেন, ভগবানগোলায় ডিগ্রি কলেজ স্থাপনের প্রক্রিয়া শুরু করেছিল বিগত বামফ্রন্ট সরকার। কিন্তু তৃণমূল সরকারের সময়ে বন্ধ আছে সেই প্রক্রিয়া। অন্যদিকে এলাকায় কর্মসংস্থান না থাকায় প্রতিদিন যুবক, তরুণদের একটা বড় অংশকে কাজের খোঁজে পাড়ি দিতে হচ্ছে ভিন রাজ্যে। বিভিন্ন রাজ্যে গিয়ে সাম্প্রদায়িক শক্তির হাতে হেনস্তা হচ্ছেন জেলার যুবকরা। ভগবানগোলায় ডিগ্রি কলেজ স্থাপন এবং কর্মসংস্থান সৃষ্টির দাবিতে আন্দোলন তীব্রতর করার আহ্বান জানানো হয় সমাবেশ থেকে।

Current Affairs

Featured Posts

Advertisement