বছর দুই কেটে যাবার পরও
শৌচালয়ের তালা খুলল না
প্রশাসনের উদাসীনতায়

নিজস্ব সংবাদদাতা   ৯ই নভেম্বর , ২০১৮

পুরুলিয়া, ৮ই নভেম্বর—নির্মল বাংলা অভিযানের প্রচারে কোটি কোটি টাকা খরচ করা হয়। কলকাতা থেকে আধিকারিকরা এসে সভা আলো করে মিটিং করে যান। পঞ্চায়েতে পঞ্চায়েতে চলে প্রচার। কিন্তু পঞ্চায়েতের প্রধান সকাল থেকেই প্রকৃতির ডাকে সাড়া দিতে চলে যান মাঠে। প্রশাসনের সর্বত্রই ঢিলেমি এবং উদাসীনতা দেখা যায়। বলরামপুর বাসস্ট্যান্ডে ২০১৬ সালে তৈরি হয়েছিল শৌচালয়। ২০১৮ সালে শেষ হতে চলল আজও সেই শৌচালয়ের তালা খোলেনি। তালা খোলার সামান্যতমও কোনও উদ্যোগ নেই প্রশাসনের কোনও স্তরেই। প্রশাসনের কাছে বহুবার দরবার করেও কোনও লাভ হয়নি।

বলরামপুর বাসস্ট্যান্ডে দৈনিক কয়েক হাজার মানুষ যাতায়াত করেন। অথচ সেই বাসস্ট্যান্ডে নেই কোনও শৌচালয়। প্রশাসন সূত্রে জানা গেছে, পুরুলিয়ার সাংসদের সাংসদ উন্নয়ন তহবিলের ‍ অর্থে পূর্ত দপ্তর এই শৌচালয়টি তৈরি করেছিল। কাছ শেষ হবার পর আজও সেই শৌচালয়র দরজা সাধারণ মানুষের জন্য খুলে দেওয়া হয়নি। যতো দিন যাচ্ছে ততই ক্ষোভ বাড়ছে সাধারণ মানুষের মধ্যে। প্রশাসনের একটা সূত্র মারফত জানা গেছে যে, শৌচালয় তৈরি করা হলেও জল ‍‌নিকাশি ব্যবস্থা ভালো না হওয়াতে তালা খোলা যাচ্ছে না। বাধ্য হয়ে বাসযাত্রী, ক্ষুদ্র ব্যবসায়ী থেকে সাধারণ মানুষকে খোলা আকাশের নিচেই যাতায়াত করতে হয়। নোংরা জলের গন্ধের কারণে মানুষকে নাকে কাপড় চাপা দিতে হয়। তবুও নির্মল বাংলা অভিযান।

Current Affairs

Featured Posts

Advertisement