রাজ্য কর্মীদের সংগঠনের
শতবর্ষে রক্তদান, দেহদান

নিজস্ব প্রতিনিধি   ৭ই ডিসেম্বর , ২০১৮

কলকাতা, ৬ ডিসেম্বর— পশ্চিমবঙ্গ সরকারি কর্মচারী সমিতির শতবর্ষ উপলক্ষে উদ্‌যাপন কমিটির উদ্যোগে স্বেচ্ছায় রক্তদান, মরণোত্তর দেহদান ও চোখ দানের কর্মসূচি পালিত হলো বৃহস্পতিবার। এদিন নব মহাকরণের ক্যান্টিন হলে রক্তদান কর্মসূচি হয়। কর্মসূচির উদ্বোধন করেন অশোক সেনগুপ্ত। প্রধান অতিথি ছিলেন সুমিত ভট্টাচার্য।

এদিন বক্তব্য রাখেন শতবর্ষ উদ্‌যাপন কমিটির সভাপতি ড. সুবিমল সেন। তিনি বলেন, রক্তদান করে কর্মচারীরা এই বার্তা দিচ্ছেন যে, শুধুমাত্র দাবি আদায়ের মধ্যেই কর্মচারী সংগঠন সীমাবদ্ধ নয়। নবান্নতে সরকারি কর্মচারীদের গ্রেপ্তার করার প্রসঙ্গে তুলে তিনি বলেন, ‘‘ভারতবর্ষের ২৯টি রাজ্যের মধ্যে পশ্চিমবঙ্গের কর্মচারীরা বেতন কমিশনের সুপারিশ থেকে বঞ্চিত, মহার্ঘ ভাতাও কম পাচ্ছেন। সেই দাবি নিয়ে বিক্ষোভ দেখাতে গিয়ে নবান্নতে গ্রেপ্তার হলেন আঠারো জন। তাঁদের মধ্যে কয়েক জনকে অন্য জায়গায় বদলি করলেও তাঁরা এই কর্মসূচিতে অংশ নিয়েছেন। এই মানসিক দৃঢ়তা থাকার জন্যই সংগঠন শতবর্ষে পৌঁছেছে।’’

সংগঠনের সাধারণ সম্পাদক সুখেন্দু কুণ্ডু বলেন, ১৯২০ সালে প্রতিকূল পরিস্থিতির মধ্যে সংগঠনের জন্ম হয়। এখনও সেই সংগঠনের কর্মসূচি পালিত হচ্ছে কঠিন পরিস্থিতির মধ্যেই। যত বাধা বিপত্তি আসুক, বদলি করা হোক, তাঁরা কর্মচারী সমাজের মধ্যে আছেন এবং থাকবেন। যে সব সরকারি কর্মচারীকে বদলি করা হয়েছে, তাঁদের মধ্যে এই দিন উপস্থিত ছিলেন বিজয় শঙ্কর সিনহা, বিশ্বজিৎ গুপ্ত চৌধুরি, দেবাশিস মিত্র, রবি সিংহ রায়। সভায় সভাপতিত্ব করেন দেবলা মুখার্জি, মণীন্দ্র মাইতি এবং চিত্তরঞ্জন গুপ্ত।