এক বছরের মধ্যেই ভেঙে পড়ল গেট
মেদিনীপুর মেডিক্যালে বিক্ষোভ

নিজস্ব সংবাদদাতা   ১২ই জানুয়ারি , ২০১৯

মেদিনীপুর, ১১ জানুয়ারি— তাঁর অনুপ্রেরণায় রাজ্যে সবকিছুই হচ্ছে। সেই অনুপ্রেরণায় কয়েক লক্ষ টাকা খরচে নির্মাণ হওয়া ক্যাটল গেট ভেঙে পড়ল মেদিনীপুর মেডিক্যালে। মেডিক্যাল কলেজ ও হাসপাতালের প্রধান ফটকটি তৈরি হয়েছিল বছরখানেক আগে। ফটকের তলায় গবাদি প্রাণীরা যাতে ঢুকতে না পারে, তার জন্য লোহার পাইপ দিয়ে রাস্তাটি সংযোগ করা হয়। অভিযোগ নিম্নমানের খণ্ড খণ্ড পাইপ দিয়ে শকেট দিয়ে জয়েন্ট করে এই ক্যাটল গেট তৈরি হয়েছিল। বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় সেই পাইপগুলি ভেঙে পড়ে। শুক্রবার দুপুর পর্যন্ত সেই একই অবস্থায় গেটটি পড়েছিল। ফলে ক্যাম্পাসের মধ্যে থাকা অ্যাম্বুলেন্স যেমন বাইরে বের হতে পারেনি, তেমনি রোগী নিয়ে আসা অ্যাম্বুলেন্সগুলি গেটের সামনে আটকে পড়ে। স্যালাইন, অক্সিজেন চালু, এমন রোগীদের চ্যাংদোলা করে গেট থেকে জরুরি বিভাগে নিয়ে যেতে হয়েছে। এই কাজে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ কোনও ট্রলি বা সাহায্য করার জন্য কর্মী দেয়নি। এই ঘটনার প্রতিবাদে ঐ প্রধান ফটকের তলায় রোগীর বাড়ির সদস্যরা বিক্ষোভে শামিল হন। দাবি ওঠে, এই অবস্থায় রোগীদের নির্দিষ্ট স্থানে ‍ নিয়ে যেতে বিকল্প হিসাবে পাটাতন পেতে যাতায়াতের ব্যবস্থা করা হোক। বিক্ষোভ চলাকালীন পুলিশ ও হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ ঘটনাস্থলে আসে। তাদের ঘিরেও বিক্ষোভ দেখায় মানুষ। দাবি মতো গেটের সামনে ট্রলিসহ কর্মী নিয়োগ করা হয় রোগীদের জন্য।

যে সংস্থা এই কাজ করেছিল, তাদের নাকি দশ বছর রক্ষণাবেক্ষণ করার দায়িত্ব। এমন নিম্নমানের সরঞ্জাম ব্যবহার করার ফলেই গেট ভেঙে পড়েছে বলে জানিয়েছেন অনেকেই। কোনও ব্যবস্থা নেওয়া হবে কিনা, হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ তা নিয়ে মুখ খুলতে চাননি। শাসকদলের অনুগত ঠিকাদার সংস্থা এই গেটটি তৈরি করেছিল বলে জানা গেছে।

Current Affairs

Featured Posts

Advertisement