মার্কিন প্রথম মহিলা মহাকাশচারী
স্যালি রাইড প্রয়াত

সংবাদ সংস্থা

ওয়াশিংটন, ২৪শে জুলাই — প্রথম মার্কিন মহিলা মহাকাশচারী স্যালি রাইডের মৃত্যু হয়েছে সোমবার। মৃদুভাষী এই পদার্থবিদ ২৯বছর আগে লিঙ্গ বৈষম্যের বেড়া ভেঙে মহাকাশে পাড়ি জমিয়েছিলেন। একবার নয়, দু’বার তিনি পাড়ি দিয়েছিলেন মহাকাশে। তাঁরই গড়া প্রতিষ্ঠান স্যালি রাইড সায়েন্স জানিয়েছে তাঁর মৃত্যু সংবাদ। তারা জানিয়েছে, ১৭মাস ধরে ক্যান্সারের সঙ্গে লড়াই করছিলেন রাইড। তাঁর প্যানক্রিয়াসে ক্যান্সার হয়েছিল। মাত্র ৩২বছর বয়সে মহাকাশে গিয়েছিলেন তিনি। সেই সময় তিনিই সর্বকনিষ্ঠ মার্কিন মহাকাশচারী ছিলেন। ১৯৭৮সালে নাসায় যোগ দেন তিনি। সেবছরই প্রথম মহিলাদের মহাকাশচারীর ক্লাসে অন্তর্ভুক্ত করেছিল নাসা। রাইডের সঙ্গে আরও ৫হন মহিলা যোগ দিয়েছিলেন সেই ক্লাসে। ৮হাজার আবেদনকারীর মধ্যে ২৯জন পুরুষ এবং ঐ মহিলাদের নেওয়া হয়েছিল। পরের বছর জনসন স্পেস সেন্টারে তাঁদের প্রশিক্ষণ শুরু হয়েছিল। এরপর টানা ৫বছর প্রশিক্ষণের পর ১৯৮৩সালে মহাকাশযান চ্যালেঞ্জারে চেপে ক্রিউ মেম্বার হিসেবে প্রথম মহাশূণ্যে গিয়েছিলেন স্যালি রাইড। ৬দিনের জন্য মহাকাশে ছিলেন প্রথমবার। বেশ কয়েকটি বৈজ্ঞানিক পরীক্ষা নিরীক্ষা ছিল তাঁর কাজের মধ্যে। এরপর আবার ১৯৮৪সালে ৮দিনের জন্য এস টি এস-৪১জি’তে করে মহাকাশে গিয়েছিলেন তিনি। এবার পৃথিবীর বৈজ্ঞানিক পর্যালোচনার পাশাপাশি স্যাটেলাইটে পুনরায় জ্বালানী ভরার প্রযুক্তির সম্ভাব্যতা যাচাই করে দেখিয়েছিলেন। তৃতীয়বারও তাঁর সুযোগ এসেছিল মহাকাশে যাওয়ার। কিন্তু ১৯৮৬সালের জানুয়ারি মাসে চ্যালেঞ্জার হারিয়ে যায়। তাঁকে নিয়োজিত করা হয় চ্যালেঞ্জারের দুর্ঘটনার কারণ অনুসন্ধান কমিশনের সদস্য হিসেবে। তদন্ত শেষ হলে তিনি নাসায় চাকরি গ্রহণ করেন। শিশুদের জন্য ৫টি বিজ্ঞানের বই লিখেছিলেন।

মঙ্গলবার এক শোকবার্তায় মার্কিন রাষ্ট্রপতি বারাক ওবামা তাঁকে জাতীয় হিরো হিসেবে বর্ণনা করে বলেছেন, রাইড একজন শক্তিশালী রোল মডেল ছিলেন। এক বিবৃতিতে তিনি বলেছেন, রাইড মেয়েদের উদ্বুদ্ধ করেছিলেন প্রজন্মের পর প্রজন্ম। স্কুলে বিজ্ঞান এবং অঙ্কে বিশেষ নজর দিয়ে মেয়েরা যাতে মহাকাশে যেতে উৎসাহিত হয় তারজন্য লাগাতার প্রচার করেছেন তিনি। স্যালি রাইডের মৃত্যু সংবাদ জানিয়ে তাঁর কোম্পানি ঐ বিবৃতিতে বলেছে, সীমাহীন উৎসাহ, আগ্রহ, বুদ্ধিমত্তা, প্যাশন, দায়বদ্ধতা এবং ভালোবাসা নিয়ে স্যালি তাঁর জীবনকে সম্পূর্ণভাবে উপভোগ করেছেন। নাসার প্রশাসক চার্লস বোলডেন রাইড সম্পর্কে বলেছেন, মার্কিন মহাকাশ কর্মসূচীর আক্ষরিক প্রতীক ছিলেন স্যালি। তাঁর মৃত্যুতে জাতি এক অসাধারণ নেতা, শিক্ষক এবং আবিষ্কারককে হারিয়েছে বলে মন্তব্য করেছেন বোলডেন।

Featured Posts

Advertisement