জন্মশতবর্ষ পূর্তি উপলক্ষে মেদিনীপুরজুড়ে
স্মরণ কমরেড সুকুমার সেনগুপ্তকে

নিজস্ব সংবাদদাতা

মেদিনীপুর, ৮ই নভেম্বর — কমরেড সুকুমার সেনগুপ্তের জীবনধারা, কর্মপদ্ধতি, বলিষ্ঠতা, সমাজতন্ত্রের প্রতি অবিচল নিষ্ঠা, জনজীবনের সমস্যাবলী নিয়ে ঝাঁপিয়ে পড়ার মানসিকতা, সাহসী নতুন কর্মী গড়ে তোলার ধারাবাহিক প্রচেষ্টা ইত্যাদি গুণাবলী থেকে শিক্ষা নিয়ে যোগ্য হয়ে গড়ে উঠতে হবে। কমরেড সুকুমার সেনগুপ্তর জন্মশতবর্ষ পূর্তি অনুষ্ঠান উপলক্ষে একসভায় একথা বলেন সি পি আই (এম) পশ্চিম মেদিনীপুর জেলা সম্পাদক দীপক সরকার।

কমরেড সুকুমার সেনগুপ্ত জন্মগ্রহণ করেন ১৯১৩ সালে ৫ই নভেম্বর। পার্টির রাজ্য দপ্তরে জীবনবসান ঘটে ১৯৯৩ সালে ১৬ই সেপ্টেম্বর। মেদিনীপুর কলেজে ছাত্র অবস্থায় ঝাঁপিয়ে পড়েন দেশের স্বাধীনতা সংগ্রামে। দীর্ঘদিন কাটিয়েছেন আন্দামানের সেলুলার জেলে। কারাগারে থাকাকালীন উদ্বুদ্ধ হন মার্কসীয় মতবাদে। বৃহস্পতিবার মূল অনুষ্ঠানটি হয় বিদ্যাসাগর স্মৃতি মন্দিরে। বক্তব্য রাখেন সি পি আই-র পশ্চিম মেদিনীপুর জেলা সম্পাদক সন্তোষ রানা। তিনি প্রথমে অবিভক্ত কমিউনিস্ট পার্টি এবং পরবর্তী সময়ে পার্টি ভাগ হলে সি পি আই (এম) গড়ে তোলার কাজে কমরেড সুকুমার সেনগুপ্তের বলিষ্ঠ ভূমিকার কথা উল্লেখ করেন। বক্তব্য রাখেন আর এস পি জেলা সম্পাদক শক্তি ভট্টাচার্য, ফরোয়ার্ড ব্লক নেতা সুকুমার ভূঞ্যা। বক্তারা কমরেড সুকুমার সেনগুপ্তের স্বচ্ছ এবং সংগ্রামী জীবনের কথা উল্লেখ করেন।

দীপক সরকার কমরেড সেনগুপ্তের স্মরণে যে সমস্ত প্রতিষ্ঠানগুলি গড়ে উঠেছে তাঁর উল্লেখ করে ঘোষণা করেন নতুন জায়গায় সম্প্রসারিত করা হবে পার্টির জেলা কার্যালয়। কাজ শুরু হবে কয়েক মাসের মধ্যে। জেলা কার্যালয়ের নামকরণ হবে ‘‘সুকুমার সেনগুপ্ত ভবন।’’ সম্প্রসারিত কার্যালয়ে থাকবে দেশের স্বাধীনতা সংগ্রামে বিপ্লবীবাদী ধারা সম্পর্কে অনুশীলন, চর্চা এবং গবেষণা কেন্দ্র।

এই দিন কমরেড সুকুমার সেনগুপ্তের জন্মশতবর্ষ পূর্তি অনুষ্ঠান হয় জেলার মোট ৪৯টি জায়গায়। আলোচনায় অংশ নেন বিভিন্ন স্তরের নেতৃবৃন্দ। তাঁর দীর্ঘ সময়ের কর্মক্ষেত্র ছিল ঘাটাল মহকুমায়। ঘাটালে টাউন হলে তাঁর স্মরণে সভায় বক্তব্য রাখেন কমরেড সুকুমার সেনগুপ্তের বিশেষ ঘনিষ্ঠ সহকর্মী বিশিষ্ট ব্যক্তিত্ব সুকুমার দেব। জন্মশতবর্ষ উপলক্ষে সংগঠিত হয় সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান।

কমরেড সুকুমার সেনগুপ্তের মৃত্যুর পরে প্রতিবছর সুকুমার সেনগুপ্ত স্মারক বক্তৃতা আয়োজন করে এসেছে পার্টির পশ্চিম মেদিনীপুর জেলা কমিটি। জন্মশতবর্ষ পূর্তি উপলক্ষে বিদ্যাসাগর স্মৃতি মন্দিরে অনুষ্ঠানে সুকুমার সেনগুপ্ত স্মারক বক্তৃতা সংকলন নামে একটি পুস্তক প্রকাশ করেন পার্টির জেলা সম্পাদক দীপক সরকার। এছাড়া প্রকাশিত হয় কমরেড সুকুমার সেনগুপ্তর সংগ্রামী জীবনের বিভিন্ন স্মৃতি বিজড়িত একটি ফটো অ্যালবামও।

Featured Posts

Advertisement