মিথ্যে মামলায় আগাম জামিন
পেলেন রায়গঞ্জের বিধায়ক

নিজস্ব সংবাদদাতা

রায়গঞ্জ, ২০শে মার্চ — মিথ্যে মামলায় আগাম জামিন পেলেন রায়গঞ্জ পৌরসভার প্রাক্তন চেয়ারম্যান, বিধায়ক মোহিত সেনগুপ্ত। দশ হাজার টাকার ব্যক্তিগত বন্ডে আগাম জামিনের আবেদন মঞ্জুর করেন রায়গঞ্জ আদালতের বিচারক বৈদ্যনাথ ভাদুড়ি।

রায়গঞ্জে পৌরভোটের আগেই প্রাক্তন চেয়ারম্যান মোহিত সেনগুপ্তের বিরুদ্ধে বিশ্বাসভঙ্গ ও টাকা তছরূপের চেষ্টার মামলা করে সরকারি প্রশাসক। বৃহস্পতিবার রায়গঞ্জ আদালতে আগাম জামিনের শুনানি ছিল। পুলিশ যথা সময়ে আদালতে কেস ডায়েরি জমা না দেওয়ায় সেদিন শুনানি বাতিল করে দেন। সোমবার ফের শুনানির দিন ধার্য করা হয়। এদিন সকালে মামলার তদন্তকারী অফিসার গৌতম রায় ও রায়গঞ্জ থানার আই সি আদালতে কেস ডায়েরি জমা দেন। সরকার পক্ষের আইনজীবী প্রভাবশালী তকমা দিয়ে মোহিত সেনগুপ্তর আগাম জামিনের আবেদনের বিরোধিতা করেন। তাঁরা আদালতকে জানান, তদন্ত এখন প্রথম পর্যায়ে রয়েছে। আগাম জামিন দিলে তদন্তে প্রভাব পড়বে। মোহিত সেনগুপ্তের আইনজীবী আদালতকে বলেন, পৌরসভায় ফান্ড না থাকা সত্ত্বেও তিনি উন্নয়ন কাজ চালিয়ে গেছেন। দু পক্ষের আরজি শুনে আদালত, প্রভাবশালী তকমা খারিজ করে ১০ হাজার টাকার ব্যক্তিগত বন্ডে মোহিত সেনগুপ্তের আগাম জামিনের আবেদন মঞ্জুর করেন। সরকার পক্ষের আইনজীবী এই বিষয়ে কোনও মন্তব্য করতে চাননি।  

সোমবার বিকালে মোহিত সেনগুপ্ত সাংবাদিক সম্মেলন করে বলেন, রাজনৈতিক উদ্দেশ্য প্রণোদিতভাবে মিথ্যা মামলা করেছে প্রশাসক। কংগ্রেসের দুই কর্মীর বিরুদ্ধেও মিথ্যে মামলা করেছে তৃণমূল। আগামী পৌর নির্বাচনে তৃণমূল ও বিজেপি দুই দলই নির্মূল হবে রায়গঞ্জে।