বিপর্যয় অনিবার্য: বিপ্লবী সরকার
ওবামার কিউবা নীতি
বাতিল করলেন ট্রাম্প

সংবাদসংস্থা

মিয়ামি ও হাভানা, ১৭ই জুন— বারাক ওবামার কিউবা নীতি বাতিল করলেন ডোনাল্ড ট্রাম্প। শুক্রবার মিয়ামিতে মার্কিন রাষ্ট্রপতি ঘোষণা করেন ‘কিউবার সঙ্গে’ তাঁর পূর্বসূরির ‘পুরোপুরি একপেশে চুক্তি’ তিনি বাতিল করবেন। পালটা প্রতিক্রিয়া জানিয়ে সেদিনই কিউবার বিপ্লবী সরকার এক বিবৃতিতে জানিয়ে দিয়েছে, ট্রাম্পের নীতি পরিবর্তনে ‘বিপর্যয় অনিবার্য’।

‘কিউবার রাজনৈতিক, অর্থনৈতিক ও সামাজিক ব্যবস্থা পরিবর্তনে যে কোনও স্ট্র্যাটেজি, তা সে চাপ সৃষ্টি এবং কঠোর বিধি আরোপ, অথবা আরও তীক্ষ্ণ কায়দা নেওয়া হোক না কেন, বিপর্যয় অনিবার্য।’ সরাসরি জানিয়ে দিয়েছে কিউবা।

মিয়ামিতে ট্রাম্প দাবি করেন, ‘আমাদের নীতি হলো কিউবার জনগণ এবং মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের জন্য আরও ভালো চুক্তি। আমরা চাই না মার্কিন ডলার (কিউবার) সামরিক ক্ষেত্রকে সহায়তা করুক, যা শোষণ, নিপীড়ন করে চলেছে কিউবার জনগণকে।’ যোগ করেন, কিউবা ‘রাজনৈতিক বন্দিদের মুক্তি’ এবং ‘অবাধ নির্বাচন’ না করা পর্যন্ত প্রত্যাহার করা হবে না অবরোধ। ট্রাম্পের পরিবর্তনে ‘ব্যক্তিগতভাবে’ মার্কিন নাগরিকদের কিউবা ভ্রমণ আরও কঠোর করা হবে। শিক্ষা-বহির্ভূত সফর ছাড়া মার্কিন নাগরিকদের কিউবা ভ্রমণে আবারও যেতে হবে মার্কিন সংস্থাগুলির পর্যটন সংস্থার সঙ্গে। নতুন নীতিতে মার্কিন সংস্থাগুলি কিউবার আর্মড ফোর্সেস বিজনেস এন্টারপ্রাইজেসের (জি এ ই এস এ) সঙ্গে রাখতে পারবে না কোনওরকম বাণিজ্যিক সম্পর্ক। যদিও, বাণিজ্যিক উড়োজাহাজ ও নৌ চলাচল অব্যাহত থাকবে বলে জানান তিনি।

ট্রাম্পের মতে, ‘আগের (মার্কিন) প্রশাসনের পর্যটন ও বাণিজ্য বিধি শিথিলের পদক্ষেপ কিউবার জনগণকে কোনও সাহায্য করেনি, কেবলমাত্র সমৃদ্ধ করেছে কিউবার জমানাকে।’ এই পরিবর্তনগুলি সত্ত্বেও কিউবার সরকারের সঙ্গে কূটনৈতিক সম্পর্ক রাখবে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র। হাভানায়, মার্কিন দূতাবাস যা নতুন করে খুলেছে দু’বছর আগের আগস্টে, তা বন্ধ হবে না। তবে তাঁর হুমকি, ‘আমরা কিউবার সার্বভৌমত্বের প্রতি সম্মান দেখাব, কিন্তু তাই বলে কিউবার জনগণের দিকে কখনও মুখ ঘুরিয়ে থাকব না, কখনও তা ঘটবে না।’

‘অবরোধকে কঠোর করতে নতুন পদক্ষেপে তীব্র নিন্দা জানাচ্ছে কিউবার সরকার, যার বিপর্যয় অনিবার্য, যেমন বারংবার হয়েছে অতীতে এবং বিপ্লবকে দুর্বল করার লক্ষ্য কখনও সফল হবে না, কিংবা কখনও তা পরাস্ত করতে পারবে না কিউবার জনগণকে, যে কোনও ধরনের আগ্রাসনকে মোকাবিলা করতে যার প্রতিরোধ শক্তি গত প্রায় ছ’দশক ধরে প্রমাণিত।’ একইসঙ্গে, কিউবার বিপ্লবী সরকার ওই বিবৃতিতে জানিয়েছে ‘পারস্পরিক স্বার্থে সম্মানজনক আলোচনা ও সহযোগিতা রক্ষায় আগ্রহী’ তারা, ‘একইসঙ্গে বকেয়া দ্বিপাক্ষিক বিষয়গুলি নিয়ে আলোচনাতেও সমান আগ্রহী।’