মৃত্যুদণ্ড রদে জাধভের
আরজি খতিয়ে দেখা হচ্ছে
জানালো পাক সেনাবাহিনী

সংবাদসংস্থা

ইসলামাবাদ, ১৬ই জুলাই— কুলভূষণ জাধবের মৃত্যুদণ্ড রদের আবেদন খতিয়ে দেখছেন পাকিস্তানের সেনাপ্রধান জেনারেল কামার জাভেদ বাজওয়া। এই আবেদনের যথার্থতা খতিয়ে দেখার পরই তিনি এই বিষয়ে সিদ্ধান্ত নেবেন। রবিবার পাকিস্তান সেনাবাহিনী সূত্রে একথা জানানো হয়েছে।

পাকিস্তানের জেলে বন্দি ৪৬ বছরের জাধব গত জুন মাসে পাক সেনাপ্রধান বাজওয়ার কাছে মত্যুদণ্ড রদ চেয়ে আবেদন করেন। গত ২২শে জুন পাক সেনাবাহিনীর জনসংযোগ বিভাগ একটি বিবৃতি দিয়ে এমনই জানিয়েছিল। ওই বিবৃতিতে বলা হয়েছিল, পাক সেনা আদালতে মৃত্যুদণ্ড রদের আবেদন খারিজ হয়ে যাওয়ার পর ভারতীয় নৌসেনার প্রাক্তন আধিকারিক কুলভূষণ জাধব এই বিষয়ে পাক সেনাপ্রধানের কাছে আবেদন করেন।

পাকিস্তানের আইন অনুসারে পাক সেনাপ্রধানের কাছে মৃত্যুদণ্ড মকুবের আবেদন করার অধিকার রয়েছে জাধভের। পাক সেনাপ্রধান তাঁর আবেদন খারিজ করে দিলে জাধভ এরপর পাক রাষ্ট্রপতির কাছে মৃত্যুদণ্ড রদের আরজি জানাতে পারবেন। পাকিস্তানের রাষ্ট্রপতিই এই বিষয়ে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেবেন।

গত বছরের ৩রা মার্চ পাকিস্তানের বালুচিস্তান প্রদেশ থেকে জাধভকে গ্রেপ্তার করা হয় বলে পাক সেনাবাহিনীর দাবি। ভারতের অবশ্য বক্তব্য, ইরান থেকে তাঁকে অপহরণ করে পাকিস্তানে নিয়ে যাওয়া হয়েছে। পাক সেনাবাহিনীর আরো দাবি, পাকিস্তানে গুপ্তচরবৃত্তি ও নাশকতামুলক ষড়যন্ত্রে জড়িত ছিলেন জাধভ। গত এপ্রিল মাসে এই মামলায় তাঁকে দোষী সাব্যস্ত করে মৃত্যুদণ্ড দেয় পাক সেনাবাহিনীর আদালত। কুলভূষণ জাধভকে কূটনৈতিক সহায়তা দিতে চেয়ে ভারত ১৫ বার আবেদন করেছে। কিন্তু প্রতিবারই সেই আবেদন নাকচ করে দিয়েছে পাক সরকার।

এরপরই ভারত কুলভূষণ জাধভের মৃত্যুদণ্ডের বিরুদ্ধে হেগ শহরের আন্তর্জাতিক আদালতে আবেদন জানায়। ভারত ও পাকিস্তানের কৌঁসুলিদের সওয়ালের শেষে গত মে মাসে কুলভূষণের মৃত্যুদণ্ড স্থগিতের নির্দেশ দেয় সেই আদালত।